আগামী বছর থেকে নতুন শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই নয়

কোভিড-১৯ এর কারণে আগামী বছর থেকে নতুন শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই দেয়া হচ্ছে না। এরফলে আগামীবছরও শিক্ষার্থীদের পুরনো শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই পড়তে হবে। একবছর পিছিয়ে ২০২২ সাল থেকে নতুন শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই বিতরণ করা হবে। মঙ্গলবার রাজধানীর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপুমনির সভাপতিত্বে আয়োজিত এক বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

সংশ্লিষ্টরা বলেছেন, ২০২১ সাল থেকে প্রথম থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত নতুন শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই ছাপা হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু কোভিড-১৯ এসে সবকিছু তছনছ করে দিয়েছে। এরফলে চলতি বছরের বাকি সময়ের মধ্যে ২০২১ সালের নতুন শিক্ষাক্রমের পাঠ্যবই প্রণয়ন করা সম্ভব হবে না। একারণে একবছর পিছিয়ে নতুন শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই ২০২২ সাল থেকে বিতরণ করার সিদ্ধান্ত হয়েছে বৈঠকে।

জানতে চাইলে জাতয়ি শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডের (এনসিটিবি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক নারায়ণ চন্দ্র সাহা ভোরের কাগজকে বলেছেন, পরিস্থিতির কারণে ২০২১ সালে নতুন শিক্ষাক্রমের বই দেয়া সম্ভব হবে না। একারণে নতুন শিক্ষাক্রমের পাঠ্যবই শিক্ষার্থীরা পাবে ২০২২ সাল থেকে। তবে নতুন শিক্ষাক্রমের আলোকে আগামী বছর একটি শিক্ষক নির্দেশিকা প্রণয়ন করা হবে এবং তা আগামী বছরের পাঠ্যবইয়ের সঙ্গে শিক্ষকদেরকে দেয়া হবে। এই নির্দেশিকা পড়ে শিক্ষকরা ধারণা পাবেন ২০২২ সালের নতুন শিক্ষাক্রম সম্পর্কে। এতে শিক্ষকরা লাভবান হবেন বলে তিনি জানান।